ছেলে আমেরিকায় থাকায় ৩ দিন ধরে মায়ের দেহ পড়ে রইল টালিগঞ্জের বাড়িতে, Body of Elderly woman fell inside Tollygunge house as his son resides in America

  • Whatsapp

বাড়ি থেকে দুর্গন্ধ

বাড়ি থেকে দুর্গন্ধ

প্রতিবেশীরা জানিয়েছেন, দিন কয়েক ধরেই দুর্গন্ধ পাচ্ছিলেন তাঁরা। কিন্তু কোথা থেকে তা আসছিল তা বুঝতে পারেননি প্রথমে। রবিবার ওই গন্ধ আরও বাড়ে। এপরেই খোঁজ শুরু করেন স্থানীয়রা। বাড়ি নির্দিষ্ট করার পর স্থানীয়রাই খবর দেন থানায়।

Read More

একাকি বৃদ্ধের মৃত্যু

একাকি বৃদ্ধের মৃত্যু

সন্ধ্যারানী দাস নামে বছর ৭৫-এর বৃদ্ধ থাকতেন টালিগঞ্জের রানি ভবানী রোড এলাকায়। পুলিশ আসার পরে ঘরে ঢুকে দেখতে পায় মর্মান্তিক দৃশ্য। বৃদ্ধার পচা-গলা দেহ পড়ে রয়েছে বিছানার ওপর।

বৃদ্ধার মর্মান্তিক পরিণতিতে আক্ষেপ প্রতিবেশীদের

বৃদ্ধার মর্মান্তিক পরিণতিতে আক্ষেপ প্রতিবেশীদের

বৃদ্ধার এই মর্মান্তিক পরিণতি আক্ষেপ প্রতিবেশীদের। তাঁরা বলছেন, যদি আগে খোঁজ নেওয়া হত, তাহলে এই অবস্থা হত না। তাঁদের প্রশ্ন, তাহলে কি আমেরিকা প্রবাসী ছেলের সঙ্গে মায়ের কোনও যোগাযোগ ছিল না?

আমেরিকায় ছেলের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা পুলিশের

আমেরিকায় ছেলের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা পুলিশের

প্রতিবেশীরা বলছেন, মায়ের খোঁজ না পেলেও, ছেলের উচিত ছিল প্রতিবেশীদের সঙ্গে যোগাযোগ করা। কিন্তু এক্ষেত্রে তা হয়নি। তবে পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, আমেরিকা প্রবাসী ছেলের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করছেন তাঁরা।

Related posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *